mission71

নিউইয়র্কে চলছে জাতিসংঘ ৭৬তম সাধারণ অধিবেশন। জাতিসংঘের সাধারণ সভায় সাধারণত দুটো পর্বে বক্তব্য পেশ করেন বিভিন্ন রাষ্ট্রের প্রতিনিধিরা। প্রতিনিধিরা সকালের পর্ব এবং সন্ধ্যার পর্ব বক্তব্য পেশ করে থাকেন।

একটা বিষয় অনেকেই হয়ত জানেন না-বহু দশক ধরে জাতিসংঘের সাধারণ সভায় প্রথম বক্তব্য পেশ করে আসছে ব্রাজিল।

জানা যায়, ১৯৫৫ সাল থেকে এই প্রথা চলে আসছে। এর কারণ ব্রাজিলের তৎকালীন কূটনীতিক ওসওয়ালদো আরানহা ওই সময় সবার আগে জাতিসংঘের সাধারণ সভায় বক্তব্য পেশ করেন। তৎকালীন সময় অন্যান্য দেশের প্রতিনিধিরা জাতিসংঘের সাধারণ সভায় বক্তব্য পেশের বিষয়টা এতটা গুরুত্ব দিতেন না। সেজন্য ব্রাজিল উদ্য়োগী হয়ে প্রথমে বক্তব্য রাখত। সেই প্রথাই এবারও বজায় রাখলেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জইর বলসোনারো। জাতিসংঘের ৭৬তম সাধারণ সভাতে তিনিই প্রথম বক্তব্য রাখেন। এছাড়াও চলতি অধিবেশনে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ বিশ্বের অন্যান্য রাষ্ট্রনেতারা বক্তব্য রাখছেন।
যদিও কেউ কেউ অনুমান করে যে ক্রম বর্ণানুক্রমিকভাবে নির্ধারিত হয়, এটি এমন নয়। এই ঐতিহ্যটি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের অবসানের পর পরই জাতিসংঘের প্রথম বছর থেকে শুরু হয়।

এদিকে, নিউইয়র্কে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগদান শেষে দেশে ফিরে আইসোলেশনে গেছেন ব্রাজিল প্রেসিডেন্ট বলসোনারো।