মিশন একাত্তর

বেইজিং-এর এক পাইকারি বাজার থেকে প্রকোপ শুরু হওয়ার পর চীনের রাজধানীতে করোনাভাইরাস মহামারির দ্বিতীয় ঢেউ আঘাত করবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

জেলা কর্মকর্তা চু জুনওয়েই নিশ্চিত করছেন যে শিনফাডি পাইকারি বাজার থেকে ৪৫ জনকে নতুন করে করোনা শনাক্ত করা হয়েছে।

বেইজিং-এর দক্ষিণ-পূর্বে অবস্থিত ঐ বাজারের ১০ হাজারেরও বেশি কর্মীর করোনাভাইরাস পরীক্ষা করা হয়েছে।

বেইজিং-এর বাসিন্দাদের জন্য শতকরা ৮০ ভাগ মাংস ও সবজি আসে এই বাজার থেকে।

এই ঘটনার পর আশেপাশের ১১টি এলাকা লকডাউন করা হয়েছে।

চীনা কর্মকর্তারা বলছেন, আমদানি করা স্যামন মাছ কাটা হয় এমন এক জায়গায় করোনাভাইরাসের নমুনা পাওয়া গিয়েছে।চীনা কর্মকর্তারা একে যুদ্ধকালীন জরুরি অবস্থার সাথে তুলনা করেছেন।


শিনফাডি বাজারের কাছে এক আর্ট গ্যালারিতে আগত কিছু শিশু।
সোশাল মিডিয়া প্রকাশিত ভিডিও ফুটেজে দেখা যাচ্ছে মিলিটারি পুলিশের শত শত সদস্য মার্চ করে শিনফাডি মার্কেটে যাচ্ছে।

সেখানকার কোন কোন এলাকা শুধুমাত্র বাসিন্দাদের ছাড়া অন্য সবার জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

ঐ বাজারের আশেপাশে সব স্কুল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। যোগাযোগ ব্যবস্থাও বিচ্ছিন্ন।

শহরের বিখ্যাত দুটি স্থান লামা মন্দির এবং ন্যাশনাল সেন্টার ফর পারফর্মিং আর্টসও বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।