mission71

নদীর দুই কূল উন্নয়নে একনেকে ইতোমধ্যে প্রায় সাড়ে ৮ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন হয়েছে। নৌপথে মালামাল পরিবহণের লক্ষ্য নিয়ে নাব্য বৃদ্ধিতে কাজ এগিয়ে যাচ্ছে। এটি হলে উত্তরাঞ্চলে বড় পরিবর্তন আসবে। একইসঙ্গে উত্তরাঞ্চলে এগ্রোবেইজ কোম্পানিগুলো স্থাপনে গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকার (আরডিজেএ) আয়োজনে সংগঠনের প্রয়াত সাংবাদিক সদস্যের সন্তানদের বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। রোববার (৫ ডিসেম্বর) রাজধানীর পল্টন টাওয়ারে অর্থনীতিক ‍রিপোর্টার্স ফোরামে (ইআরএফ) অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন আরডিজেএ’র সভাপতি মোকছুদার রহমান মাকসুদ।

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেন, কলকারখান স্থাপনে উত্তরাঞ্চল পিছিয়ে থাকলেও খাদ্যভাণ্ডার হিসেবে এখনো সমৃদ্ধ। তাই কৃষিভিত্তিক কোম্পানিগুলো এখানে স্থাপনে প্রধানমন্ত্রী বেশ গুরুত্ব দিচ্ছেন। তিস্তা নদীর দুই কূল উন্নয়নে ইতোমধ্যে সাড়ে ৮ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প পাশ হয়েছে।

তিস্তার নাব্য ঘিরে আন্তর্জাতিকভাবে পণ্য পরিবহণের পরিকল্পণা রয়েছে। দুপারে কলকারখানা স্থাপন হলে উত্তরাঞ্চলে বড় পরিবর্তন আসবে বলেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

তিনি বলেন, দেশে আর মঙ্গা নেই, আওয়ামী লীগ সরকার তা বিদায় করেছে। সৈয়দপুর বিমানবন্দর এখন আঞ্চলিক বিমানবন্দরে পরিণত হয়েছে। প্রতিদিন সেখানে ১০-১৫টি ফ্লাইট পরিচালিত হচ্ছে, আমাদের অর্থনীতিক সক্ষমতা আগের চেয়ে অনেক বেড়েছে। কৃষিকে এগিয়ে নিয়ে কুড়িগ্রামে একটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করছে সরকার; শিগগিরিই অবকাঠামোও নির্মাণকাজ শুরু হবে বলেন বাণিজ্যমন্ত্রী।

প্রয়াত ৫ জন সদস্যের সন্তান ও স্বজনের হাতে অনুষ্ঠানে বৃত্তির চেক তুলে দেন মন্ত্রী। ঢাকায় কর্মরত উত্তরাঞ্চলের সাংবাদিকদের সংগঠনের এই অসামান্য সহযোগিতাকে অব্যাহত রাখার আহ্বান জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে আরডিজেএ’র সভাপতি মোকছুদার রহমান মাকসুদ বলেন, আগামী ১৭ ডিসেম্বর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আমরা আশা করব, নতুন যারা এখানে নেতৃত্ব দেবেন, তারা এই উদ্যোগ অব্যাহত রাখবেন।

আরডিজেএ’র সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমানের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন অর্থনীতিক ‍রিপোর্টার্স ফোরামের সাধারণ সম্পাদক রাশেদুল হকসহ অনেকে।

অনুষ্ঠান থেকে রফিকুল হক দাদুভাই, হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরী, অলিয়্যু আতিক, আল-আমিন ও শফিউল আলম রাজার স্বজন ও সন্তানরা বৃত্তির চেক গ্রহণ করেন।